News Section:

দৈনিক স্বদেশ বার্তা পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশের জের কৈয়ার ঢালার স্লুইচ গেইট খুলে দিয়েছেন কর্তৃপক্ষ

দৈনিক স্বদেশ বার্তা পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশের পর আজমিরীগঞ্জের পাহাড়পুর বাজারের পার্শ্ববর্তী কৈয়ার ঢালার স্লুইচ গেইট খুলে দিয়েছে কর্তৃপক্ষ। ফলে বানিয়াচঙ্গের হাওরে পানি বাড়ছে। পানি বৃদ্ধিতে আমন ফসল রক্ষার সম্ভাবনা দেখা দেয়ায় কৃষকদের মুখে হাসি ফুটে উঠেছে। চলতি বর্ষা মৌসুমে সারাদেশের হাওরগুলো পানিতে ভরে উঠলেও বানিয়াচঙ্গের হাওরে পানির অভাবে বানিয়াচঙ্গ উপজেলার ১০হাজার ৫শ হেক্টর বোনা আমন ও ১৫হেক্টর রোপা আমন ফসল নষ্ট হওয়ার উপক্রম হয়। একারণে কৃষকদের মধ্যে হতাশা দেখা দেয়। কৃষকরা আজমিরীগঞ্জের পাহাড়পুর বাজারের পার্শ্ববর্তী কৈয়ার ঢালার স্লুইচ গেইট খুলে দিলে হাওরে পানি বাড়বে এবং ফসল রক্ষা হবে বলে অভিমত ব্যক্ত করে কর্তৃপক্ষের কাছে স্লইচ গেইট খুলে দেয়ার জোর দাবী জানান। কিন’ বানিয়াচঙ্গ উপজেলা কৃষি অফিসের পক্ষ থেকে হবিগঞ্জ পানি উন্নয়ন বোর্ড এর সাথে যোগাযোগ না করায় পানি উন্নয়ন বোর্ড স্লুইচ গেইট খুলে দেয়ার পদক্ষেপ গ্রহণ করেনি। এনিয়ে গত ৯ জুলাই দৈনিক স্বদেশ বার্তা পত্রিকায় নিউজ প্রকাশ করা হয়। এই সংবাদ প্রকাশের পর কর্তৃপক্ষ স্লইচ গেইটের একটি কপাট খুলে দেয়। ফলে বানিয়াচঙ্গের হাওর গুলোতে স্বাভাবিক ভাবে পানি বাড়তে থাকে। পানি বাড়ায় ফসল রক্ষা পাওয়ার সম্ভাবনা দেখা দেয়ায় কৃষকদের মুখে আনন্দের হাসি ফুটে উঠে। এব্যাপারে কৃষকরা প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করে জানান, তারা যখন কৃষি অফিসের লোকদের স্লুইচ গেইট খুলে দেয়ার পদক্ষেপ গ্রহণ করতে বলেছিলেন তখন কৃষি অফিসের লোকজন স্লুইচ গেইট খুললে বন্যা দেখা দিবে বলে আশংকা ব্যক্ত করেছিলেন। কিন’ পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশের পর স্লইচ গেইট খুলে দেয়ায় বন্যা হয়নি বরং স্বাভাবিক ভাবে পানি বেড়ে ফসল রক্ষা পাচ্ছে।